1. admin@dailyhumanrightsnews24.com : admin :
বুধবার, ২৪ এপ্রিল ২০২৪, ০৬:২৬ পূর্বাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম :
নড়াইল সুলতান মেলা উপলক্ষে ষাঁড়ের লড়াই প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত হয়েছে। লোহাগড়ায় গাঁজাসহ ২জন মাদক ব্যবসায়ী গ্রেফতার। জগন্নাথপুরে মোটরসাইকেল দুর্ঘটনায় শিশু সহ ৩ জন আহত জগন্নাথপুরে সাংবাদিক শংকর রায় এর শেষকৃত্য সম্পন্ন, বিভিন্ন মহলের শোক প্রকাশ গোপালগঞ্জ জেলা পুলিশের মানবিক কর্মসূচি বাস্তবায়ন গোপালগঞ্জে নবাগত অতিরিক্ত পুলিশ সুপার উখিংমের যোগদান গোপালগঞ্জের উপজেলা চেয়ারম্যান প্রার্থী গাজী মাসুদ অনারস মার্কায় টুঙ্গিপাড়াবাসীর কাছে দোয়া ও ভোট ভিক্ষা চান। গোপালগঞ্জ জেলা নির্বাচন কমিশন উপজেলা নির্বাচনে চেয়ারম্যান প্রার্থীদের মাঝে প্রতীক ঘোষনা করেন। লোহাগড়ায় সরকারী নিয়ম-নীতি না মেনে দিঘলিয়া ইউপি চেয়ারম্যান বিদেশ সফরে। জগন্নাথপুরে ওয়াশ ব্লকের নির্মাণ কাজ উদ্বোধন করলেন কাউন্সিলর কামাল হোসেন

গোপালগঞ্জে জেলা তথ্য অফিসের উদ্যোগে জাতীয় শোক দিবস উপলক্ষ্যে আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত

  • আপডেট সময় : মঙ্গলবার, ২৯ আগস্ট, ২০২৩
  • ৪৪ বার পঠিত

মোঃ শিহাব উদ্দিন গোপালগঞ্জ

স্বাধীনতার মহান স্থপতি জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ৪৮তম শাহাদাত বার্ষিকী ও জাতীয় শোক দিবস-২০২৩ যথাযোগ্য মর্যাদায় পালন উপলক্ষ্যে গোপালগঞ্জ জেলা তথ্য অফিসের আয়োজনে গত সোমবার (২৮ আগস্ট) সকাল ১০ টায় কোটালীপাড়া শেখ হাসিনা আদর্শ সরকারি মহাবিদ্যালয়ে আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে।
গোপালগঞ্জ জেলা তথ্য কর্মকর্তা মুঈনুল ইসলামের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন কান্দি ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান তুষার মধু। আলোচনা সভায় স্বাগত বক্তব্য রাখেন সহকারী তথ্য কর্মকর্তা শাহ আব্দুর রহিম নুরন্নবী।
প্রধান অতিথি তাঁর বক্তব্যে ১৯৭৫ সালের ১৫ আগস্টে নিহত জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ও তাঁর পরিবারের সকল সদস্যদের গভীর শ্রদ্ধার সাথে স্মরণ করেন।
তিনি আরও বলেন, ১৫ আগস্ট জাতীয় শোকের দিন। বাংলার আকাশ বাতাস এবং প্রকৃতিরও অশ্রুসিক্ত হওয়ার দিন। কেননা পঁচাত্তরের এই দিনে আগস্ট আর শ্রাবণ মিলেমিশে একাকার হয়েছিল বঙ্গবন্ধুর রক্ত আর আকাশের মর্ম ছেঁড়া অশ্রুর প্লাবনে। ৭৫ এর ১৫ আগস্ট সুবহে সাদেকের সময় যখন ধানমন্ডি ৩২ নম্বরে নিজ বাসভবনে সপরিবারে বঙ্গবন্ধুকে বুলেটের বৃষ্টিতে ঘাতকরা ঝাঁঝরা করেছিলো তখন যে বৃষ্টি ঝরে ছিল তা যেন প্রকৃতির অশ্রুপাত। নিষ্ঠুর ঘাতকদের আঘাতে হত বিহ্বল হয়ে পড়েছিলো সমগ্র বাংলা। যুগ থেকে যুগান্তরে জ্বলবে শোকের আগুন। বঙ্গবন্ধুর খুনিদের কোন ক্ষমা নাই। দেশবিরোধী চক্রের কোনো ক্ষমা নাই। জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু চলে গেলেও তার আদর্শ এখনো টিকে আছে। কেননা তিনি ছিলেন একটি জাতির স্বপ্নের স্বপ্নদ্রষ্টা এবং তিনি স্বাধীনতার স্থপতি। যতদিন এ রাষ্ট্র থাকবে ততদিন অমর তিনি।
সভাপতি তার বক্তব্যে বলেন, বিশ্ব সভ্যতার ইতিহাসে ঘৃণ্য ও নৃশংসতম এই হত্যাকাণ্ডের মাধ্যমে সেদিন তারা শুধু বঙ্গবন্ধুকেই নয়, তার সঙ্গে বাঙালির হাজার বছরের প্রত্যাশার অর্জন স্বাধীনতার আদর্শগুলোকে হত্যা করতে চেয়েছিলো। মুছে ফেলতে অপচেষ্টা চালিয়েছিলো বাঙালির বীরত্ব গাঁথার ইতিহাসও। কিন্তু ওরা সফল হয়নি। কখনো হবেও না ইনশাআল্লাহ।
আলোচনা সভায় আরো বক্তব্য রাখেন, হিসাব বিজ্ঞান বিভাগের সহকারী অধ্যাপক আলী আশরাফ খান, মিন্টু রায়। তাঁরা তাদের বক্তব্যে শিক্ষার্থীদের উদ্দেশ্য করে বলেন, আজকের এই শোক দিবসের শোককে শক্তিতে পরিণত করে অঙ্গীকার করে দেশকে ভালোবাসতে হবে, দেশের জন্য কাজ করতে হবে, দেশের গান কণ্ঠে তুলতে হবে। অনুষ্ঠানটি সঞ্চালনা করেন শেখ হাসিনা আদর্শ সরকারি মহাবিদ্যালয়ের প্রভাষক মুক্তাদির আহমেদ।

সংবাদটি শেয়ার করুন :
এ জাতীয় আরও খবর

ফেসবুকে আমরা

© স্বত্ব সংরক্ষিত © ২০১৮ দৈনিক মানবাধিকার সংবাদ
Theme Customized By Shakil IT Park