1. admin@dailyhumanrightsnews24.com : admin :
শুক্রবার, ২৪ মে ২০২৪, ০৬:২৫ পূর্বাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম :
র‌্যাব-৫ হাতে চারঘাটে মাদক ও অস্ত্র সহ ব্যবসায়ী গ্রেফতার বারহাট্টা উপজেলা নির্বাচনে ৪ প্রার্থীর জামানত বাজেয়াপ্ত মানুষকে সর্বজনীন পেনশন স্কীমের আওতায় আনার লক্ষে জগন্নাথপুরে মতবিনিময় সভা শমশেরনগর হাসপাতালে যুক্ত হলেন ইংল্যান্ড প্রবাসী তিন সফল নারী শমশেরনগর হাসপাতালে যুক্ত হলেন ইংল্যান্ড প্রবাসী তিন সফল নারী নেত্রকোনার ৩ উপজেলাতেই নতুনরা নির্বাচিত রানীগঞ্জ -হলিকোনা সড়কের করুন দশা, জনগণের ভোগান্তি জগন্নাথপুরে প্রভাষক মাওলানা মোঃ তরিকুল ইসলাম এর যুক্তরাজ্য গমন উপলক্ষে বিদায়ী সংবর্ধনা জমে উঠেছে লংগদু উপজেলা পরিষদ নির্বাচন, প্রচারনায় ব্যস্ত প্রার্থীরা নড়াইলে পূর্বশত্রুতার জেরে নিলয় কে হত্যা,প্রধান আসামি সাকিল গ্রেফতার।

শ্বশুর বাড়িতে জামাইয়ের গলায় দড়ির ফাঁসি

  • আপডেট সময় : মঙ্গলবার, ১৬ এপ্রিল, ২০২৪
  • ৩৭ বার পঠিত

উমর ফারুক পঞ্চগড় জেলা প্রতিনিধি:

মেহমান খেতে এসে শ্বশুর বাড়ীতে গলায় দড়ি দিয়ে আত্মহত্যা করেছেন দেবারু (৩৮) বয়সের এক লোক ।

মঙ্গলবার ( ১৬ এপ্রিল ) দুপুরে পঞ্চগড় জেলার বোদা উপজেলার পৌর শহরের বানিয়াপাড়া গ্রামে এনতাজুল মিন্ত্রির বাড়ীতে এই ঘটনাটি ঘটে । দেবারু ইসলাম বানিয়াপাড়া গ্রামে এনতাজুল মিন্ত্রির মেয়ের জামাই । জানা গেছে দেবারু একই উপজেলার চন্দনবাড়ী ইউনিয়নের সরকারপাড়া ফিনদাইলবাড়ী গ্রামের মৃত শুকুর আলীর ছেলে। সে এক কন্যা ও এক পুত্র সন্তানের জনক বলে জানা গেছে। ঐ বাড়ির লোকজনে কথা অনুয়ায়ী তিনি দুপুরে খাওয়া দাওয়া শেষে ঘরের মধ্যে দরজা জানলা লাগিয়ে বিশ্রাম নিতে থাকে। এর মধ্যে তাকে ডাকা ডাকির এক পর্যায়ে ঘরে জানালা দিয়ে দেখা যায় সে শোয়ার ঘরের মাঝখানে গলায় রশি পেচিয়ে আত্নহত্যা করেছে। ঘটনাটি জানা জানি হলে এলাকায় তোলপার শুরু হয়ে যায়। শত শত উৎসুক জনতা এক নজর দেখার জন‍্য বাড়িতে গিয়ে ভিড় জমান। বিকেলে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে লাশটি উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য পঞ্চগড় আধুনিক সদর হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয় ।

স্থানীয়রা জানান, নিহত দেবারু ও তার স্ত্রী দীর্ঘদিন যাবত ঢাকার একটি বে- সরকারী কোম্পানিতে চাকুরী করেন। এ সময় তার স্ত্রী এক ব্যক্তির সাথে পরকীয়ায় জোড়ান। পরকীয়া প্রেমিক ও তার নির্যাতনে একাধিকবার অভিযোগ করেন তার শ্বশুর বাড়ির লোকজনের কাছে। সম্প্রতি নিজ এলাকায় দেবারু ও তার স্ত্রী ঈদের জন্য বাসায় আসলে সেখানেও তাকে নির্যাতন করা হয়। গতকাল দেবারুর স্ত্রী তার স্বামীকে রেখে ঢাকায় যায়। এ ঘটনায় আজ সকালে স্ত্রীর বড় ভাইয়ের বাসায় অভিযোগ করতে আসেন। অভিযোগ শোনার পরে কোনরকম সুরাহার না হওয়ায় সেই বাসায় সবার অজান্তে ফ্যানের সাথে ফাঁস লাগিয়ে আত্মহত্যা করেন।নিহতের পরিবারের এক সদস্য জানান,বিয়ের পর হতে সংসারের স্বচ্ছলতা ফেরাতে ঢাকায় পাড়ি জমান তিনি। চাকরি করার সুবাদে তার চাচী সেখানে এক ব্যক্তির সাথে পরকীয়া জড়ান। এ নিয়ে বারবার তাদের মধ্যে ঝগড়া বিবাদ চলে আসছিল। আজ চাচীর বড় ভাইয়ের কাছে সেই অভিযোগ নিয়ে এখানে আসেন। বিকালে কোন এক সময় চাচা আত্মহত্যা করেন।

এলাকাবাসীরা জানান, প্রায় সময় নানা অভিযোগ নিয়ে নিহত ব্যক্তি তার শশুর বাড়ির লোকজনের কাছে অভিযোগ করেন। আজ সকালে তাকে এখানে আসতে দেখেন। তবে সকলেই বলছে যে পারিবারিক কলহের কারনে আত্নহত‍্যা করে থাকতে পাড়ে। এ ব্যাপারে বোদা থানার অফিসার ইনর্চাজ মোজাম্মেল হক জানান, এক ব্যক্তির মরদেহ উদ্ধার করে প্রাথমিক ভাবে সুরতহাল করে ময়নাতদন্তের জন্য পঞ্চগড় আধুনিক সদর হাসপাতালের মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে। কি কারণে আত্মহত্যা করেছে তা জানা যায়নি । তদন্ত রিপোর্ট আসলে মৃত্যুর কারণ জানা যাবে। এ বিষয়ে পরিবারের পক্ষ থেকে অভিযোগ পেলে আইনানুক ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

সংবাদটি শেয়ার করুন :
এ জাতীয় আরও খবর

ফেসবুকে আমরা

© স্বত্ব সংরক্ষিত © ২০১৮ দৈনিক মানবাধিকার সংবাদ
Theme Customized By Shakil IT Park